কালিহাতীতে পঙ্গু মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে হামলা, মামলা তোলার জন্য বাড়ি অবরোধ

শাহ আলম, কালিহাতী : টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে পঙ্গু মুক্তিযোদ্ধার বাড়িতে হামলার ঘটনায় থানায় মামলা। বিবাদী মামলা তুলে নেওয়ার জন্য বাদীর বাড়ি অবরোধ করেছে। এতে এলাকাবাসীর মধ্যে নিন্দার ঝড়।

জানা যায়, কালিহাতী উপজেলার পালিমা গ্রামের বীর মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার সহিদুল রহমান একই গ্রামের কায়েম উদ্দিনের নিকট ১০ শতাংশ জমি দশ হাজার টাকা মূল্য নির্ধারন করে ১৯৮৮ সালের ২৭ ডিসেম্বর সাড়ে নয় হাজার টাকা বায়না দিয়ে ভোগ দখল করে আসছে। কিন্তু চতুর কায়েম উদ্দিন জমির দলিল নিয়ে নানারকম তালবাহানা করে আসছে। জমি দলিলের কথা বললে কায়েম উদ্দিন বাদীকে নানারকম হুমকী ও ভয়ভীতি দেখায়।

গত ৯ মে সকালে বাড়ি উচ্ছেদের জন্য কায়েম উদ্দিনের নির্দেশে কিছু নারী-পুরুষদের লেলিয়ে দেয়। তারা মুক্তিযোদ্ধা খন্দকার সহিদুল রহমানের বাড়িতে অতর্কিত হামলা চালায়।

এতে মুক্তিযোদ্ধার স্ত্রী রেখা বেগম, মেয়ে সাথী আক্তার, নাতনী মেহেজাবীন ও জিনিয়া মারাত্বকভাবে আহত হয়। এদের মধ্যে দু’জনের অবস্থা আশংকাজনক টাঙ্গাইল শেখ হাসিনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছে।

এ বিষয়ে সহিদুল ইসলামের স্ত্রী রেখা বেগম জানান, আমরা বাড়ি থেকে বের হতে পারছিনা। তারা মামলা তুলে নেওয়ার জন্য রাস্তায় রাস্তায় লোক দিয়ে পাহারা দিচ্ছে আমাদের মারবার জন্য।

কালিহাতী থানার এস আই জুলফিকার আলী জানান, বিবাদীরা যতই শক্তিশালীই হোক তাদেরকে আইনের আওতায় এনে তদন্ত সাপেক্ষে ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

Related Articles