টাঙ্গাইলে ছেলে ধরা সন্দেহে গণপিটুনিতে আহত ভ্যানচালক চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু

 

 

নিজস্ব প্রতিবেদক : টাঙ্গাইলের কালিহাতীতে ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনির শিকার আহত ভ্যানচালক মিনু মিয়া (৩০) মারা গেছেন। ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সোমবার সকালে তার মৃত্যু হয়। ৮দিন চিকিৎসাধীন থাকার পর সে মারা যায়। নিহত মিনু মিয়া ভূঞাপুুর উপজেলার টেপিবাড়ি গ্রামের কোরবান আলীর ছেলে।

এ ব্যাপারে কালিহাতী থানার ওসি হাসান আল মামুন বলেন, ছেলেধরা সন্দেহে গণপিটুনির শিকার ভ্যানচালক আজ সোমবার সকালে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিৎিসাধীন অবস্থায় মারা যায়। গত ২১ জুলাই বিকেলে তিনি গণপিটুনির শিকার হন। পরে এ ঘটনায় আহতের ভাই থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ ৬ জনকে গ্রেফতার করে।

উল্লেখ্য, গত ২১ জুলাই বিকেলে ভ্যানচালক মিনু মিয়া কালিহাতীর সয়া হাটে মাছ ধরার জাল কিনতে যায়। হঠাৎ ছেলেধরা সন্দেহে তার উপর উত্তেজিত হয়ে বেধড়ক গণপিটুনি দেয় উপস্থিত জনতা। পরে পুলিশ গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করায়। পরে টাঙ্গাইল হাসপাতালে নেওয়ার পর তার শারীরিক অবস্থা আশংকাজনক হলে ঢাকা একটি হাসপাতালে প্রেরণ করা হয়।

Related Articles