ধনবাড়ী পৌরসভায় আ’লীগ বিদ্রোহী প্রার্থী মেয়র নির্বাচিত

নিজস্ব প্রতিবেদক:

টাঙ্গাইলের ধনবাড়ী পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী (স্বতন্ত্র) মনিরুজ্জামান বকল ১ হাজার ১৫৯ ভোট বেশি পেয়ে বেসরকারিভাবে বিজয়ী হয়েছেন। তিনি পান ৮ হাজার ৯৬৩ ভোট। তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী আওয়ামীলীগের প্রার্থী বর্তমান মেয়র খন্দকার মঞ্জুরুল ইসলাম তপন পান ৭ হাজার ৮০৪ ভোট। শনিবার রাত সোয়া ৯ টার দিকে জেলা রির্টানিং কর্মকর্তা ও জেলা নির্বাচন কর্মকর্তা এ এইচ এম কামরুল হাসান বেসরকারিভাবে এ ফলাফল ঘোষণা করেন।

এর আগে শনিবার সকাল ৮ টায় ইভিএমের মাধ্যমে ভোট গ্রহণ শুরু হয়ে চলে বিকেল ৫টা পর্যন্ত। বিচ্ছিন্ন ঘটনার মধ্যে দিয়ে পৌর সভার নির্বাচনের ভোট গ্রহন শেষ হয়। নির্বাচন সুষ্ঠু করতে পর্যাপ্ত সংখ্যাক আইনশৃঙ্খলা বাহিনী মোতায়েত করা হয়।

দুপুরে ধনবাড়ী সরকারি ডিগ্রী কলেজ কেন্দ্রে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি সমর্থিত নেতাকর্মীদের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়ার ঘটনা ঘটে। এ ঘটনায় বিএনপি সমর্থিত সজল নামের এক যুবক গুরুতর আহত হন। তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। পরে বিএনপি’র সমর্থিতরা গিয়ে ওই কেন্দ্রের পাশ্ববর্তী উপজেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক মশিউর রহমান মিন্টু, নৌকা সমর্থিত কাউছারের বাড়িতে ভাংচুর চালায়। এছাড়াও সোহেল নামের আরও একজনের মোটরসাইকেল ভাংচুর করে। পরে পুলিশ গিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

মিন্টু ও কাউছারের পরিবারের অভিযোগ, ধানের শীষ সমর্থিত নেতাকর্মীরা তাদের বাড়িতে হামলা করে কুপিয়ে একটি ঘরের টিনের ভেড়া ও আরেকটি ঘরের জানালার গ্লাস ভাংচুর করে। এদিকে একই কেন্দ্রে ভোটারদের ফিঙ্গার রেখে বের করে দেয়ার অভিযোগ উঠেছে নৌকা সমর্থিতদের বিরুদ্ধে। আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী মেয়র প্রার্থী মনিরুজ্জামান বকল (নারিকেল গাছ) ও বিএনপি প্রার্থী এসএমএ ছোবহান (ধানের শীষ) এ অভিযোগ তুলেন।

উল্লেখ্য, ধনবাড়ী পৌরসভার মোট ভোটার সংখ্যা ৩০ হাজার ৩ জন। এর মধ্যে পুরুষ ১৪ হাজার ৪৬৩ জন আর মহিলা ১৫ হাজার ৫৪০ জন। মোট কেন্দ্র ১৫টি। নির্বাচনে ৪জন মেয়র প্রার্থী, ৯টি ওয়ার্ডে ২৯ জন কাউন্সিলর ও ১৩ জন সংরক্ষিত মহিলা কাউন্সিলর প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করেন।

 

(মজলুমের কণ্ঠ / ১৭ জানুয়ারি / আর.কে.)

সংবাদটি শেয়ার করুন

Related Articles