গোপালপুরের হাটবৈরান-বড়মা গ্রামের সড়কটির করুন দশা

নিজস্ব প্রতিবেদক : টাঙ্গাইলের গোপালপুরের হাটবৈরাণ-বড়মা গ্রামের সড়কের এখন করুণ দশা। কাঁচা এ সড়কের একমাত্র কালভার্টটিও ভাঙ্গা। ফলে অন্তত দশটি গ্রামের মানুষের যাতায়াত ও পণ্য পরিবহণে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে।

এলাকাবাসী জানান, তিন কিলোমিটার এ পথেই হাটবৈরাণ, মাকুল্যা, বড়মা, ধোপাকান্দি, কুকুরজানিসহ দশ গ্রামের শত শত মানুষ প্রতিদিন যাতায়াত করেন।

এলাকাবাসির দীর্ঘ দিনের দাবি সত্বেও সড়কটি পাকাকরণ হয়নি। বর্ষাকালে স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীদের এ কাঁচা সড়ক ধরেই উপজেলা সদরের স্কুল-কলেজগুলোতে আসতে হয়।

হাটবাজারে কৃষিপণ্য আনা নেয়া হয় এ পথেই। পনেরো বছর আগে এ সড়কের হাটবৈরাণ এলাকায় একটি কালভার্ট নির্মাণ করা হয়। সম্প্রতি কালভার্টটিও ভেঙ্গে ঝুকিপূর্ণ হয়ে পড়েছে। ঝুকি নিয়ে যানবাহন পারাপার হয় কালভার্ট দিয়ে।

হাটবৈরান গ্রামের বাসিন্দা আব্দুল হাই জানান, এই গ্রামের বিশাল মাঠের ফসল কৃষকরা এ কাঁচা সড়কেই বাড়িতে নিয়ে আসে। কিন্তু কালভার্টটি অকেজো হয়ে পড়ায় কৃষকরা বেকায়দায় পড়েছে। গত বর্ষায় কাঁচা সড়কের কোন কোন স্থান ধ্বসে পড়েছে। পায়ে হেটে যেতেও এখন সমস্যা।

এলাকাবাসী জানান, বর্ষার আগে এই সড়ক ও কালভার্ট মেরামত করা না হলে এ রাস্তা জন সাধারনের যাতায়াত উপযোগি থাকবে না।

গোপালপুর পৌরসভার মেয়র রকিবুল হক জানান, জনগণের দুর্ভোগের কথা চিন্তা করে পৌরসভার উদ্যোগে জরুরী ভিত্তিতে সেখানে নতুন কালভার্ট নির্মাণের উদ্যোগ নেয়া হচ্ছে।

গোপালপুর উপজেলা প্রকৌশলী মনিরুল ইসলাম জানান, ওই কাঁচা সড়কটি পাঁকাকরণের জন্য অনুমোদন চাওয়া হয়েছে। বরাদ্দ পেলেই রাস্তার কাজ শুরু হবে।

Related Articles