টাঙ্গাইলে মহর আলী হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল এবং স্মারক লিপি প্রদান

নিজস্ব প্রতিবেদক : টাঙ্গাইলে ব্যবসায়ী মহর আলীর হত্যাকারীদের গ্রেফতার ও শাস্তির দাবিতে বিক্ষোভ মিছিল এবং স্মারক লিপি প্রদান করেছে জাতীয় মৎস্য ব্যবসায়ী সমিতি জেলা শাখা। মঙ্গলবার সকালে টাঙ্গাইল প্রেসক্লাবের সামনে থেকে বিক্ষোভ মিছিল বের হয়ে শহরের গুরুত্বপূর্ণ সড়ক প্রদিক্ষিণ শেষে জেলা প্রশাসক ও পুলিশ সুপারের মাধ্যমে প্রধানমন্ত্রী বরাবর স্মারক লিপি প্রদান করেন।

এতে উপস্থিত ছিলেন জেলা ব্যবসায়ী ঐক্যজোটের সভাপতি আবুল কালাম মোস্তফা লাভু, জাতীয় মৎস্য ব্যবসায়ী সমিতির জেলা শাখার সভাপতি মো. নুরুল ইসলাম মাতাব্বর, সাধারণ সম্পাদক আমীর হামজা বেপারী, কাউন্সিলর মেহেদী হাসান আলীম, কাউন্সিলর মীর মইনুল হক লিটন, বিশিষ্ঠ সমাজ সেবক আশরাফ পাহেলী, পার্ক বাজার ব্যবসায়ী সমিতির সভাপতি আব্দুল বারেক, সাধারণ সম্পাদক জোয়াহের আলী, বিশিষ্ঠ ব্যবসায়ী মো. ফিরোজ মিয়া পৌর এলাকা মৎস্য ব্যবসায়ী বহুমুখি সমবায় সমিতির সভাপতি মো. আজিম হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ইমরান হোসেন, জাতীয় মৎস্য ব্যবসায়ী সমিতির নেতৃবৃন্দসহ নারী পুরুষ।

উল্লেখ্য, গত ২ জুন বিকেলে মহর আলী তার ফার্নিচারের দোকান থেকে বের হয়ে যায়। পরে তাকে শহরের একটি সিসি ক্যামেরায় দেখা যায় রিক্সা যোগে একটি বাসার সামনে নেমে যায়। তার পর থেকে তার মোবাইল ফোন বন্ধ পাওয়া যায়। পরের দিন ৩জুন সকালে একটি ব্রিফকেসে শিরউচ্ছেদকৃত ও দুই পা বিচ্ছিন্ন দেহ পাওয়া যায়। খন্ডিত দেহ এবং পরিহিত শার্ট গেঞ্জি দেখে তার আতœীয় স্বজন মহর আলী লাশ সনাক্ত করে। এ ঘটনায় নিহত মহর আলী ভাই ইশারত হোসেন বাদী হয়ে টাঙ্গাইল মডেল থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মামলার পর টাঙ্গাইল মডেল থানার সাব ইন্সপেক্টর মো. আবু সাদেক মামলার তদন্ত কর্মকর্তা হিসেবে তদন্ত শুরু করেন। নিহত মহর আলীর ব্যবহৃত মোবাইল ফোনের সুত্রধরে কয়েকজন গৃহবধুকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়। পরে কয়েকজনকে ছেড়ে দেওয়া হলেও একজন মহিলাকে হাজতে পাঠানো হয়েছে। এ ছাড়া মামলার কোন অগ্রগতি না হওয়ায় পরে মামলাটি পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেষ্টিগেশন (পিবিআই) তদন্তভার গ্রহন করেন।

Related Articles